Skip to content
Home » আপনার ফোন ভালো রাখার উপায়!

আপনার ফোন ভালো রাখার উপায়!

আপনার ফোন ভালো রাখার উপায়!

বর্তমান বিশ্বের ডিজিটাল প্রযুক্তি ও আবিষ্কারগুলোর মধ্যে মোবাইল ফোন অন্যতম। আমরা প্রায় সকলেই মোবাইল ফোন ইউস করে থাকি। বিশেষ করে স্মার্টফোন। স্মার্টফোন ছাড়া যেন আমাদের আজকাল চলেই না এক রকম। কিন্তু এই ফোন নিয়ে আমরা প্রায় সকলেই কিছু না কিছু সমস্যায় থাকি। তার মধ্যে অন্যতম হলো স্বল্প সময়ের মধ্যে স্মার্টফোনের কার্যকারিতা হারিয়ে যায়। টেকউইকি২৪ এর আজকের পোস্টে আমরা আপনার ফোন ভালো রাখার উপায় সম্পর্কে কিছু টিপস শেয়ার করব! টিপসগুলো ফলো করলে, আপনি আপনার স্মার্টফোনটি দীর্ঘদিন ভালো রাখতে পারবেন। তো, চলুন বিস্তারিত জানা যাক।

আপনার ফোন ভালো রাখার উপায়

০১. স্মার্টফোন চার্জ দেওয়ার সময় অবশ্যই ফোনের সাথে দেওয়া বা রেকমেন্ডেড চার্জার ব্যবহার করবেন। এতে করে ফোনের ব্যাটারি লাইফ অনেকদিন ভালো থাকবে। সস্তা চার্জার ব্যবহার করা থেকে সম্পূর্ণ বিরত থাকুন। এগুলো আপনার ফোনের অভাবনীয় ক্ষতি সাধন করে থাকে।

০২. ফোনে অপ্রয়োজনীয় কোনো ধরনের অ্যাপস ইন্সটল করবেন না। আর খেয়াল রাখবেন যে, আপনি যে প্ল্যাটফরম থেকে অ্যাপস ডাউনলোড করছেন তা নিরাপদ কিনা। বিভিন্ন অ্যাপের মাধমে ফোনে ভাইরাস, ম্যালওয়্যার আসতে পারে। যা থেকে আপনার গুরুত্বপূর্ণ ও গোপনীয় তথ্য চুরি হয়ে যাওয়ার সম্ভাবনা থাকে।

⏩ আরও পড়ুন: ইউটিউব চ্যানেল খোলার নিয়ম!

০৩. আমরা অনেক সময় দেখি প্লে-স্টোর বা অ্যাপল অ্যাপস্টোরে কোনো একটা অ্যাপ ডাউনলোড করতে হলে, আমাদেরকে সেটা কিনে ডাউনলোড করতে হয়। আমরা এ থেকে পরিত্রাণ পেতে বিভিন্ন ঝুকিপূর্ণ ওয়েবসাইট থেকে প্রো-মোড বা প্রিমিয়াম-মোড ডাউনলোড করে ইউজ করি। মোটেও এমনটি করতে যাবেন না। এধরণের অ্যাপগুলো মারাত্মক ঝুকিপূর্ণ।

০৪. ফোন চার্জে দিয়ে ব্যবহার করা থেকে বিরত থাকুন। আমরা নানা সময় এধরণের দুর্ঘটনার কথা হয়তো শুনে থাকব যে, ফোন চার্জে থাকা অবস্থায় ফোনের ব্যাটারি ব্লাস্ট হয়ে কেউ মারাত্মক জখম হয়েছেন। ফোন চার্জে দিয়ে ব্যবহার করলে, ফোনের সার্কিট অতিরিক্ত তাপ উৎপন্ন করে যা থেকে মূলত এধরণের মারাত্বক দুর্ঘটনা ঘটে।

০৫. দিনে অতিরিক্ত সময় ফোন ব্যবহার করবেন না। এতে আপনার চোখ ও ফোন উভয়ের ক্ষতি হয়। চেষ্টা করবেন যতটা সম্ভব ফোন, কম্পিউটার, বা এধরণের ডিজিটাল ডিভাইস কম ব্যবহার করতে। মাত্রাতিরিক্ত ফোন ব্যবহার করলে এতে করে ফোনের সক্ষমতা সময়ের সাথে সাথে কমে যায়।

০৬. অপ্রয়োজনীয় অনুমতি দেওয়া থেকে বিরত থাকুন। পাঠাও, উবারের মতো রাইড শেয়ারিং অ্যাপের লোকেশন দরকার হয়। কিন্তু অন্য কোনো অ্যাপের সেটি দরকার হয় না। অন্য অ্যাপকে লোকেশন, গ্যালারি, কন্টাক্ট ইত্যাদিতে অ্যাক্সেস দিতে সচেতন হোন। আর অনেকেই সব সময় লোকেশন অন করে রাখেন। এটিও ফোনের জন্য এবং আপনার ব্যক্তিগত সুরক্ষার জন্য ভালো নয়।

০৭. সারা রাত চার্জে রাখা থেকে সম্পূর্ণ বিরত থাকুন। রাতভর ফোন চার্জ দেওয়া ঠিক নয়। আপাতদৃষ্টিতে এতে ফোনের কোনো ক্ষতি চোখে পড়ে না। কিন্তু দীর্ঘ মেয়াদে ক্ষতির কারণ হয়ে দাঁড়ায়।

০৮. সব সময় মোবাইল কেস ব্যবহার করলেও মাঝেমধ্যে নরম কাপড় দিয়ে স্মার্টফোন পরিষ্কার রাখা ভালো। এতে স্মার্টফোনে ময়লা জমে না, দেখতেও সুন্দর লাগে। তবে কখনো টিস্যুর সঙ্গে পানি বা অন্যান্য পরিষ্কার করার রাসায়নিক দিয়ে মোবাইল পরিষ্কার করা ঠিক নয়। এতে ফোনের গায়ে আর্দ্রতা জমতে পারে।

⏩ আরও পড়ুন: কীভাবে ফেসবুক আইডি ভেরিফাই করবেন?

১০. স্মার্টফোনের কিছু সাধারণ বিষয় মনে রাখলে তা ভালো রাখা যায়। যেমন- যেসব অ্যাপ ব্র্যাকগ্রাউন্ডে চালু থেকে ব্যাটারির এনার্জি ইউজ করে, সেগুলো চালু না রাখা। অনেকেই ব্যবহারের পরেও ব্লুটুথ বা ওয়াই-ফাই চালু করে রেখে। এতে স্মার্টফোনের ক্ষমতা ধীরে ধীরে কমতে থাকে ও ব্যাটারি দ্রুত ফুরিয়ে যায়।

১১. অনেকেই স্মার্টফোনের ব্রাউজার ব্যবহার করেন। কিন্তু দীর্ঘদিন ক্যাশ মোছেন না। এতে স্মার্টফোনের মেমোরি ভরে যায়। স্মার্টফোনের গতি একেবারেই কমে যায়। নিয়মিত ক্যাশ পরিষ্কার করুন। স্মার্টফোন দ্রুত চলবে।

১২. আপনার মোবাইলের হোম স্ক্রিনে অনেক অ্যাপ রেখে তা অগোছালো করে রাখবেন না। অনেক সময় ডেস্কটপেও অনেকেই অগোছালোভাবে ফাইল রেখে দেন। ডেস্কটপে অনেক বেশি ফাইল জমে থাকলে এর গতি কমে যায়। স্মার্টফোনের ক্ষেত্রেও হোম স্ক্রিনে অনেক বেশি অ্যাপ থাকলে এর পারফরম্যান্স কমে যেতে পারে। এ ছাড়া স্মার্টফোনের ব্যাটারি দ্রুত ফুরায়। এ জন্য অপ্রয়োজনীয় অ্যাপ স্মার্টফোনের হোমস্ক্রিন থেকে সরিয়ে রাখুন।

******

প্রিয় পাঠক, এই ছিল আপনার ফোন ভালো রাখার কিছু উপায়! এই টিপসগুলো ফলো করলে আপনার ফোনের আয়ুষ্কাল বাড়বে এবং দীর্ঘদিন ধরে ফোনটা ব্যবহার করতে পারবেন। স্মার্টফোন বিষয়ে আপনার কোনো প্রশ্ন থাকলে কমেন্ট করুন। আর এধরনের আরও পোস্ট পড়তে টেকউইকি২৪ এ চোখ রাখুন। ধন্যবাদ।

পোস্টটি ভালো লাগলে শেয়ার করুন:

2 thoughts on “আপনার ফোন ভালো রাখার উপায়!”

মন্তব্য করুন: